Home » বাইকিং টিপস » অশ্বচালনা টিপস » শীতকালে রাইডিং এর গুরুত্ব পূর্ণ টিপস

শীতকালে রাইডিং এর গুরুত্ব পূর্ণ টিপস

 

কোন সন্দেহ নেই যে শীতকালে ঠাণ্ডা মধ্যে হিমায়িত রাইডারের তুলনায় উষ্ণ রাইডার অনেক বেশি নিরাপদ।

খুব ঠাণ্ডা হওয়ার কারণে কম্পন, অবসাদ, বিভ্রান্তি, মেমরির ক্ষতি, ঘনঘন বক্তব্য, তৃষ্ণার্ততা, কম শক্তি, ধীর গতির প্রতিক্রিয়া এবং গলা ও জয়েন্টগুলো শক্ত হয়ে যেতে পারে। রাইডারের নিরাপদ থাকার জন্য এইগুলির কোনটিই যুক্তিযুক্ত নয়।এই গুলির কারনে হাইপোথার্মিয়ায় আক্রান্ত হবার সম্ভাবনা থাকে।

উষ্ণ এবং আরামদায়ক রাইডার সবসময় সতর্ক ও নমনীয় থাকে। যার কারনে জরুরী পরিস্থিতিতে সিধান্ত নিতে ও মোকাবিলা করতে সক্ষম হয়।

সামান্য ঠাণ্ডা সমস্যা নাও হতে পারে, কিন্তু তিক্ত ঠান্ডা বিপজ্জনক এবং এমনকি স্থায়ী ভাবে রাইডার ক্ষতিগ্রস্ত হতে পারে।

একটু সচেতন হলেই আমাদের শীতকালীন রাইডিং নিরাপদ হতে পারে। শীতকালে নিরাপদ রাইডিং এর জন্য আপনি নিচের টিপস গুলি ফলো করতে পারেন……

সঠিক মোটরসাইকেল গিয়ার পড়ে রাইডিং এ বের হবেন

ঠাণ্ডা আবহাওয়াতে আরামদায়ক রাইডিং এর জন্য আপনি পরিপূর্ণ রাইডিং গিয়ার-আপ ব্যাবহার করুন। সবচেয়ে ভাল হয় যদি আপনি চামড়ার গিয়ার-আপ ব্যাবহার করেন। এটা খুব ভাল মত বাতাস কাটতে পারে, আবার রাইডারকেউ উষ্ণ রাখে। খেয়াল রাখবেন আপনার হাত, ঘাড় এবং পায়ের গোড়ালি জেন পরিপূর্ণ ভাবে বন্ধ থাকে।

প্রি-রাইড চেক করুন

প্রি-রাইড চেকিং বাইক রাইডিং এর জন্য খুব গুরুত্তপূর্ণ, বিশেষ কোরে শিত কালে রাইডিং এর জন্য।

রিপেআর করুন

প্রি-রাইড চেকের সময় কোন ত্রুতি ধরা পড়লে তা সমাধান করুণ। বিশেষ করে ব্রেক প্যাড, ক্লাস কেবল, ইঞ্জিন অয়েল ইত্যাদি প্রয়জন হলে পরিবর্তন করে নিন।

আবার আপনার বাইক যদি water-cooled হয়ে থাকে তবে নিশ্চিত হন জেন Antifreeze টা ঠিক মত কাজ করে।

টায়ার প্রেসার

সাধারণত শীতের সময় রাস্তা একটু পিচ্ছিল থাকে, এই সময় বাইকের টায়ারে যদি সঠিক প্রেসার না থাকে তবে আপনি সঠিক গ্রিপ পাবেন না। আবার বাইকের সঠিক মাইলেজ ও কন্ত্রলিং এর জন্য সঠিক টায়ার প্রেসার খুব গুরুত্তপূর্ণ। সঠিক টায়ার প্রেসার আপনাকে রাস্তার সাথে ভাল গ্রিপ দিবে, এতে আপনি করনারিং করতে পারবেন নিরাপদ ভাবে।

হেলমেট

বাইক চালানোর সময় আমাদের জীবন রক্ষাকারী অন্যতম উপাদান হচ্ছে ভাল হেলমেট। শীতের সময় হেলমেট আর অধিক প্রয়োজনীয়। শীতের সময় হেলমেট নির্বাচনের জন্য একটু বেশি গুরুত্ত দেওয়া উচিৎ। শীতের সময় ভিসর ফগিং যুক্ত হেলমেট ব্যাবহার করুণ।

ব্রেক এর জন্য সঠিক দুরুত্ত বজায় রাখুন

শীতের সময় অধিক দুর্ঘটনা ঘটে সঠিক দুরুত্ত বজায় না রাখার কারনে। কুয়াশার কারনে দেখতে না পারা বা রাস্তা ভিজা থাকা ইত্যাদি কারনে দুর্ঘটনা বেশি হয়। সঠিক দুরুত্ত রাখলে আপনার তাৎক্ষনিক সিধান্ত নিতে সহজ হবে।

পরিমিত খাবার

শীতের সময় সাধারনত খুধা/পিপাসা কম লাগে। শীতের সময় লম্বা রাইডের জন্য পরিমিত খাবার গ্রহণ খুবই গুরুত্বপূর্ণ। সুতরাং শীতে লম্বা রাইডিং এর সময় বিরতি দিয়ে পরিমিত খাবার গ্রহণ করুণ।

শীতের সময় লম্বা ভ্রমন করা একধরনের চ্যালেঞ্জ, তবে আপনি যদি এই টিপস গুলি অনুসরণ করেন তবে আপনার যাত্রা নিরাপদ হতে পারে।

Comments

comments

error: Content is protected !!